ছুটি কাটিয়ে মঙ্গলবার জাতীয় দলের অনুশীলন যোগ দিয়েছেন মাশরাফি বিন মর্তুজা। নড়াইল এক্সপ্রেস সামর্থ্যবান দলটাই চান আসন্ন সিরিজে। কথা বলেছেন সাব্বির-তামিমের সাম্প্রতিক জরিমানা আর শাস্তির বিষয়গুলো নিয়ে। নড়াইল এক্সপ্রেস মনে করেন জাতীয় ক্রিকেটার হলে সবদিক দিয়েই আরো সচেতন হতে হবে। 

সেন্ট্রাল কন্ট্রাক্ট থেকে বাদ, ঘরোয়া ক্রিকেটে নিষেধাজ্ঞা আর জরিমানার পরদিন মাশরাফি সাব্বিরকে বুকে জড়িয়ে ধরলেন;

নীরবে ক্ষানিক্ষণ আলোচনা---এমন ছবি, সাব্বির রহমানের সঙ্গে মাশরাফি বিন মর্তুজার অন্য এক কিছুর ইঙ্গিত- হয়তো বাংলাদেশের ক্রিকেট তারা মাশরাফি হার্ডহিটার সাব্বিরকে অনেক কিছুই বুঝিয়েছেন অল্প কথায় আর দশটা দিনের মতোই।

কিশোর পিটিয়ে সাজা, দলীয় শৃঙ্খলাভঙ্গ সবকিছু মিলিয়ে ভুক্তোভুগি সাব্বিরও মঙ্গলবার নিজেকে আড়াল করেছেন বহুবার, তবে ক্যামেরার ফোকাসে শেষপর্যন্ত তাকে বন্দী হতেই হয়।

প্রথমবারের মতো অনুশীলনে যোগ দিলেন মাশরাফি বিন মর্তুজা। দল নিয়ে চাওয়া পাওয়া, নির্বাচকদের সঙ্গে কি আলাপ হলো পাশাপাশি উঠে আসে সাব্বির-তামিমের বিষয়গুলো।

মাশরাফি বিন মর্তুজা, ওয়ানডে অধিনায়ক, জাতীয় দল

"দেখেন আমরা ঘরের মাঠে খেলছি। এখানে জিতলে ভালো, তবে বিদেশের মাটির পারফরমেন্সে আরো উন্নতি করতে হবে আমাদের। ঘরের কন্ডিশন আর বাইরের কন্ডিশন এক নয়। নিঃসন্দেহে ঘরের মাঠে সেরাটা দিয়েই খেলতে হবে।

দেখেন, সাব্বির-তামিম; দুজনই আমাদের প্রতিশ্রুতিশীল ক্রিকেটার। তাদের পারফরমেন্স দলের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আমি শুধু সাব্বিরের দিকেই দেখছিনা, আজ যদি আমি হতে পারি, কাল অন্য কোনো ক্রিকেটারকে নিয়ে বিতর্ক উঠবে। তবে আমরা যেহেতু জাতীয় ক্রিকেটার, আমাদের উচিত সতর্ক হওয়া এবং আরো সচেতন থাকা। এটুকু করাটাই একটু কঠিন। বাকিটা মাঠে ঠিক থাকলেই হয়।

জাতীয় দলের এখনকার অনুশীলনের প্রতিদিনকার রুটিন একই। সকালে রানআপ সেড়ে জিম, তারপর আলাদা করে বোলিং সেশন, নেটে ব্যাটিং প্র্যাকটিস করা সবই হলো এদিনও। বড় বিষয়, কোর্টনি ওয়ালশ ছুটিতে, তাই বিসিবি বোলিং কোচ চাম্পাকা রামানায়েকে কাজে লাগিয়েছে মঙ্গলবার। চাম্পাকাও একটানা দুই ঘন্টা ধরে বোলিং নিয়ে কাজ করলেন মুস্তাফিজ-তাসকিন-শফিউল-রাব্বিদের নিয়ে।

তামিমও ছিলেন নির্ভার। জিম করেছেন এদিন। গোটা দলের অনুশীলন শেষে ব্যাট হাত লাগিয়েছেন ক্ষানিক্ষণ। নড়াইল এক্সপ্রেস আসন্ন সিরিজ নিয়ে কথা বলেন। দলের কন্ডিশন তুলে ধরেন।

সিংক : মাশরাফি বিন মর্তুজা, ওয়ানডে অধিনায়ক, জাতীয় দল

আমাদের পারফরমেন্স নিয়ে ইদানিং বেশি কথা হচ্ছে, এটার কারণ আমি মনে করি, দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজে বাজে ফলাফল। তবে এটা ঠিক, দ্রুতই দল তা কাটিয়ে উঠবে। ত্রিদেশীয় সিরিজে ভালো কিছু  হবে আমার বিশ্বাস।